ব্রেকিং নিউজ » সাংবাদিক গোলাম সরওয়ারকে পাওয়া গেছে সীতাকুণ্ডের কুমিরার খালে

 
 
নিখোঁজের চার দিনের মাথায় ১ নভেম্বর সীতাকুণ্ডের কুমিরা এলাকায় সাংবাদিক গোলাম সরওয়ারকে অজ্ঞান অবস্থায় পাওয়া গেছে। এটার মধ্য দিয়ে উদ্বেগের অবসান হয়েছে।
ঘটনায় কারা জড়িত, কে-ই বা নেপথ্যে ইন্ধন দিয়েছে তাদের খুঁজে বের করাই এখন মুখ্য।
প্রশাসনের কাছে আমাদের দাবি সাংবাদিক সরওয়ারকে যারা অপহরণ করে তুলে নিয়ে চারদিন ধরে নির্যাতন করেছে তাদের চিহ্নিত করে গ্রেফতার পূর্বক দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করা হোক।
আর যারা এ ঘটনাকে ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করবে তাদেরকেও চিহ্নিত করবে দেশের সাংবাদিক সমাজ নিখোঁজ থাকা এই সাংবাদিককে কুমিরা এলাকায় পাওয়া যায়। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেছে বলে জানা গেছে।চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) কমিশনার সালেহ্ মোহাম্মদ তানভীর গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।
স্যান্ডো গেঞ্জি ও হাফ প্যান্ট পরিহিত এ সংবাদকর্মীর সঙ্গে স্থানীয় সাংবাদিকরা কথা বলার চেষ্টা করছিলেন। এ ঘটনার একটি ভিডিও চিত্র প্রকাশ পেয়েছে। এতে দেখা যায়, সরোয়ার সবার পা জড়িয়ে ধরার চেষ্টা করে বলতে থাকেন, ‘ভাই, আমারে মাইরেন না। আমি আর নিউজ করব না।’
 
জানা গেছে, বড় কুমিরা বাজার এলাকার একটা খালের পাড়ে তাকে পাওয়া যায় স্থানীয়রা জানান, গায়ে কাপড়চোপড় ছিল না। তিনি নিজেই পরিচয় দিয়েছেন যে তিনি একজন সাংবাদিক। পরে তিনি বিভিন্ন সাংবাদিকদের সাথে যোগাযোগ করেছেন। স্থানীয় লোকজন থানায় খবর দেন।স্থানীয়রা প্রথমে তাকে উদ্ধার করে একটি ডেকোরেশনের দোকানে নিয়ে যায় তার পরপরই সাংবাদিক গোলাম সরওয়ারকে উন্নত চিকিৎসার জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নিয়ে আসা হয়। এরপর তৃতীয় তলার ১৪ নম্বর ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়। এ সময় বিপুলসংখ্যক পুলিশ ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যদের পাশাপাশি সাংবাদিক নেতা, সহকর্মী ও স্বজনরা উপস্থিত ছিলেন। সাংবাদিক গোলাম সরওয়ারকে চমেকে ১৪ নম্বর ওয়ার্ডে রাখা হয়েছে, চিকিৎসকরা পরীক্ষা নিরীক্ষা করছেন।