অষ্ট্রেলিয়ায় ২০২১ সালেও সীমান্ত খোলার সম্ভাবনা নেই

ভ্রমণকারীদের জন্য চলতি বছর অষ্ট্রেলিয়ার আন্তর্জাতিক সীমান্ত খোলার সম্ভাবনা নেই। করোনা ভাইরাসের টিকা দেয়া সত্ত্বেও সীমান্ত বন্ধ রাখার কথা জানালেন দেশটির শীর্ষ একজন স্বাস্থ্য কর্মকর্তা।আজ সোমবার অষ্ট্রেলিয়ার স্বাস্থ্য বিভাগের সেক্রেটারি ব্রেনডাম মারফি জানান।

২০২১ সালে অষ্ট্রেলিয়ায় অবাধে আসা যাওয়া পুনরায় শুরুর আশা করা হচ্ছে না। সরকারি সম্প্রচার মাধ্যম এবিসিকে তিনি আরো বলেছেন, আমি মনে করি এ বছরও সীমান্তে কড়াকড়ি বহাল থাকবে।

তিনি বলেন, এমনকি অধিকাংশ জনগণকে টিকা দেয়া সত্ত্বেও সীমান্ত খোলা হবে না। কারণ আমরা জানি না এই টিকা সংক্রমণ বন্ধ করবে কিনা।

গত বছরের মার্চ মাস থেকে অষ্ট্রেলিয়ার আন্তর্জাতিক সীমান্ত বন্ধ রয়েছে। এতে হাজার হাজার অষ্ট্রেলিয়ান বিদেশে আটকা পড়েছে। কেউ ফিরতে চাইলে তাকে হোটেলে ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিন বাবদ ২ হাজার ৩শ’ মার্কিন ডলার অবশ্যই খরচ করতে হবে।

দেশটিতে ফাইজার ও অক্সফোর্ডের টিকা পাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে। ফেব্রুয়ারির শেষ দিকে টিকা দেয়ার কাজ শুরু করা হবে।