(চসিক)৩১ নম্বর আলকরণ ওয়ার্ডের নির্বাচন স্থগিত হচ্ছে

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন (চসিক) নির্বাচনে ৩১ নম্বর আলকরণ ওয়ার্ডের কাউন্সিলর প্রার্থী এবং আওয়ামী লীগের ত্যাগী নেতা তারেক সোলেমান সেলিমের মৃত্যুতে ওয়ার্ডটির নির্বাচন স্থগিত হবে। দুরারোগ্য বোন ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে দীর্ঘদিন চিকিৎসাধীন থাকার পর সোমবার দুপুর ২টার দিকে তিনি ঢাকার একটি বেসরকারি হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারি দুপুর ২টায় চট্টগ্রাম নগরের পুরাতন রেল স্টেশন চত্বরে তারেক সোলেমান সেলিমের নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। মৃত্যকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৫৭ বছর। তিনি স্ত্রী, এক ছেলে, দুই মেয়ে ও অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে যান।

নির্বাচন কমিশন সূত্রে জানা যায়, তফসীল ঘোষণার পর কোনো প্রার্থী মারা গেলে তখন ওই প্রার্থীর পক্ষে রিটার্নিং কর্মকর্তা বরাবরে লিখিত অবহিত করলে কমিশন নির্বাচন স্থগিত করে। আলকরণ ওয়ার্ডের ব্যাপারেও এমন সিদ্ধান্ত আসবে। এর আগে চসিকের স্থগিত হওয়া নির্বাচনে চারজন কাউন্সিলর প্রার্থী মারা গেলে ওই সব ওয়ার্ডে নতুন করে তফসিল ঘোষণা করা হয়েছিল।
চসিক নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা মুহাম্মদ হাসানুজ্জামান বলেন, ‘আলকরণ ওয়ার্ডের কাউন্সিলর প্রার্থী তারেক সোলেমান সেলিম দুরারোগ্য ক্যান্সার রোগে আক্রান্ত হয়ে মার যান। তবে বিষয়টি এখনও পর্যন্ত আমাদেরকে কেউ লিখিতভাবে জানাইনি। নিয়ম মতে, প্রার্থীর পক্ষে কেউ কমিশনে লিখিতভাবে অবহিত করলে নির্বাচন স্থগিত করার উদ্যোগ নেয়া হবে।’

জানা যায়, তারেক সোলেমান সেলিম আলকরণ ওয়ার্ডের চারবার নির্বাচিত কাউন্সিলর। স্কুল জীবন থেকেই তিনি ছাত্রলীগের রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। সেই থেকে বিরোধী পক্ষের শত অত্যাচার-নির্যাতন সয়েও তিনি আওয়ামী লীগের আর্দশ ও নীতির উপর অটল ছিলেন।