পঞ্চগড় চিনিকলে আখ মাড়াই বন্ধ, দুর্ভোগে চাষিরা

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধিঃ পঞ্চগড় চিনিকলে আখ মাড়াই বন্ধ। তাই চলতি মৌসুমে দুর্ভোগে পড়েছেন চাষিরা।নানা জটিলতায় তিন মাস ধরে ক্ষেতেই শুকাচ্ছে আখ। এতে চাষিদের প্রায় ৮ কোটি টাকা লোকসান বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা। ক্ষেতে আখ রেখে পঞ্চগড় সুগার মিলে আখ মাড়াই বন্ধ ঘোষণা করায় ক্ষোভ প্রকাশ করে ক্ষতিপূরণ দাবি করেছেন চাষিরা।

মৌসুমে পঞ্চগড়ে আখের চাষ হয়েছে প্রায় ৪ হাজার একর জমিতে। গেল বছরের ডিসেম্বর থেকে আখ মাড়াই শুরু হওয়ার কথা থাকলেও ১লা ডিসেম্বর থেকে পঞ্চগড় সুগার মিলে আখ মাড়াই বন্ধ ঘোষণা করে বাংলাদেশ চিনি ও খাদ্য শিল্প করপোরেশন।
অন্য বছরগুলোতে পঞ্চগড় সুগার মিলে ডিসেম্বরে আখ মাড়াই শুরু হয়ে চলে জানুয়ারি-ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। কিন্তু এ বছর আখ উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা ৪৮ হাজার মেট্রিক টন ধরা হলেও কাটা হয়েছে মাত্র ২৬ হাজার মেট্রিক টন। বাকি আখ ক্ষেতে শুকিয়ে নষ্ট হচ্ছে।
চাষিদের অভিযোগ: পঞ্চগড়ের আখ ঠাকুরগাঁও সুগার মিলে সরবরাহ করায় এই জটিলতা দেখা দিয়েছে। তিন চার মাস থেকে ক্ষেতে আখ শুকিয়ে যাওয়ায় কোটি কোটি টাকা লোকসান গুণতে হচ্ছে চাষিদের।
এদিকে মিলে আখ মাড়াই বন্ধ হয়ে যাওয়া চাকরি নিয়ে অনিশ্চয়তায় রয়েছে মিলের প্রায় ৭শ’ শ্রমিক কর্মচারী। আখ শুকিয়ে যাওয়ায় চাষিদের লোকসানের কথা স্বীকার করলেও এ বিষয়ে কথা বলতে রাজি নন কোন কর্মকর্তা।
ক্ষতিগ্রস্ত আখ চাষিদের ক্ষতিপূরণ দেয়াসহ চিনিকল বন্ধ না করে আধুনিকায়নের দাবি সংশ্লিষ্টদের।