ব্রেকিং নিউজ » চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগ অফিস জমজমাট সাজ সাজ রব

ব্রেকিং নিউজ » চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগ অফিস জমজমাট সাজ সাজ রব
চট্টগ্রামে সংগঠনের গতি ফেরাতে কেন্দ্রীয় নির্দেশনা অনুযায়ী আওয়ামী লীগের মহানগর থেকে তৃণমূলের সব কমিটির সম্মেলনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।তারই ধারাবাহিকতায় চলছে ইউনিট আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন। চলছে উৎসব সাজ সাজ রব জমজমাট চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামীলীগ অফিসে নতুন কমিটিকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা অভিনন্দন জানালেন মহানগর নেতারা । ২০নং দেওয়ান বাজার ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ ইউনিট আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন সফলভাবে সম্পন্ন করেই অনুমোদন এর পর নব নি্বাচিত ইউনিট কমিটি ও ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতারা আজ ২১ নভেম্বর ৭ অগ্রহায়ণ সন্ধ্যায় চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের বিপ্লবী সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন সহ নগর আওয়ামী লীগ নেতাদের সাথে বৈঠকের পর মিষ্টি মুখ করালেন ফুলদিয়ে ও শুভেচ্ছা জানালেন ইউনিট আওয়ামী লীগ নেতাদের । এভাবে প্রতিদিন চলছে উৎসব সাজ সাজ রব জমজমাট চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামীলীগের অফিস আগামী সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে তৃণমূলের সম্মেলনের পর মহানগর আওয়ামী লীগের সম্মেলন ডিসেম্বরের মধ্যেই শেষ করার কথা রয়েছে। এসব সম্মেলন ঘিরে সরকারি দলের নেতাকর্মীদের মধ্যে দেখা দিয়েছে প্রাণচাঞ্চল্য। দলীয় বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাদের সঙ্গে কথা বলে এসব তথ্য জানা গেছে।আসন্ন এসব কমিটির সম্মেলন ঘিরে এখন তৃণমূলের প্রতিটি সাংগঠনিক সভায় প্রায় নেতার দেখা মিলছে। তৃণমূলের পাশাপাশি নগর কমিটির সভাগুলোতেও উপস্থিতি আগের চেয়ে বেড়েছে। দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন ইস্যুতে বিরোধে জড়িয়ে পড়া নগর আওয়ামী লীগের কয়েকজন নেতাকেও সর্বশেষ কয়েকটি সভায় থাকতে দেখা গেছে। দীর্ঘদিন ধরে সম্মেলন না হওয়া আওয়ামী লীগের তৃণমূলের মেয়াদোত্তীর্ণ কমিটিগুলোতে এবার ত্রিবার্ষিক সম্মেলনের মাধ্যমে নতুন নেতৃত্ব আসবে।আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেন, ‘সামনে জাতীয় নির্বাচন ঘিরে চট্টগ্রাম মহানগরে সংগঠনকে ঢেলে সাজানোর জন্য এরই মধ্যে উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। সংগঠনকে আরো গতিশীল করতে সম্মেলনের মাধ্যমে নিয়মিত কমিটি করার বিকল্প নেই। কেন্দ্রীয় নেতাদের নির্দেশনা অনুযায়ী আমরা সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কার্যক্রম শুরু করেছি।আগামী সপ্তাহ দুয়েক সময় দিয়ে এ কার্যক্রম আমরা শেষ করতে পারব।যেসব ইউনিট ও ওয়ার্ডে সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কার্ষক্রম শেষ হয়েছে, সেখানে সম্মেলন চলছে। একই দিন একাধিক ইউনিটে সম্মেলন হবে। এ লক্ষ্যে তৃণমূলের নেতাদের প্রস্তুতি নিতে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।নগর আওয়ামী লীগের আওতায় সাংগঠনিক ৪৩টি ওয়ার্ড রয়েছে। প্রতিটি ওয়ার্ডে ইউনিট আছে তিনটি। সে হিসাবে ১২৯টি ইউনিট, ৪৩টি ওয়ার্ড ও ১৫টি সাংগঠনিক থানা রয়েছে।ডিসেম্বরের মধ্যে তৃণমূলের সব কমিটির সম্মেলনের পর দলীয় সভাপতি প্রধানমন্ত্রী যখনই নির্দেশনা দেবেন, তখনই চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সম্মেলন হবে।’ তিনি আরো বলেন, ‘নবীন-প্রবীণে নতুন নেতৃত্ব শক্তিশালী হবে। সুবিধাভোগী, হাইব্রিড, অনুপ্রবেশকারী ও বিতর্কিত কেউ যাতে সাধারণ সদস্যও হতে না পারে সে ব্যাপারে নেতাকর্মীদের সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে।

আমরা তো আমরাই
মোশতাক ও মীর জাফর এর প্রেতাত্বাদের সকল ষড়যন্ত্রের জবাব দিতে রাজপথে আছি থাকবো জয় বাংলার যোদ্ধারা