বিশ্বের ১০০টি শহরের মধ্যে দূষণ তালিকায় শীর্ষে ঢাকা

বিশ্বের ১০০টি শহরের মধ্যে দূষণ তালিকায় শীর্ষে ঢাকা
বায়ুদূষণে বিশ্বের ১০০টি শহরের মধ্যে শীর্ষে স্থান পেল বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকা৷ রবিবার ঢাকার প্রতি ঘনমিটার বাতাসে ভাসমান ধূলিকণা ও অন্য দূষণ কণার পরিমাণ ছিল অত্যন্ত বেশি এবং উদ্বেগজনক।বায়ুর মান পর্যবেক্ষণকারী আন্তর্জাতিক সংস্থা ‘এয়ার ভিজ্যুয়াল’-এর এক রিপোর্টে বলা হয়েছে, রবিবার সন্ধ্যা ৭টা ২২ মিনিটে বিশ্বের ১০০টি প্রধান শহরের মধ্যে বায়ুদূষণের দিক থেকে ঢাকা শীর্ষে ছিল। গতকাল বেশির ভাগ সময় বাংলাদেশের রাজধানীর বায়ু ছিল খুবই অস্বাস্থ্যকর। বায়ুদূষণের ওই তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে পাকিস্তানের লাহোর, তৃতীয় স্থানে ভারতের কলকাতা ও চতুর্থ ভারতেরই আরেক শহর দিল্লি।

এর আগে বায়ুদূষণে ২০২০ সালে বিশ্বের সবচেয়ে দূষিত দেশের তালিকায় উঠে আসে বাংলাদেশের নাম। চলতি বছরের মার্চে ওই তালিকা প্রকাশ করে সুইজারল্যান্ডভিত্তিক সংস্থা আইকিউএয়ার। ২০২০ সালের বিশ্বের বায়ুর মানের ওপর ভিত্তি করে ওই তালিকা করে সংস্থাটি। তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে ছিল পাকিস্তান, ভারত তৃতীয়।

উল্লেখ্য, ২০১৯ সালে দূষণ নিয়ে বিশ্বজুড়ে চলা ‘গ্রিনপিস’-এর সমীক্ষায় নাম ওঠে ঢাকার ৷ পৃথিবীর প্রায় তিন হাজার শহরের বাতাস কতটা অস্বাস্থ্যকর, তা জানতে বিভিন্ন সরকারি এবং বেসরকারি নজরদারি সংস্থার নথি খতিয়ে দেখে ‘আইকিউ এয়ার ভিজ্যুয়াল ২০১৮ ওয়ার্ল্ড এয়ার কোয়ালিটি’ শীর্ষক একটি রিপোর্ট প্রকাশ করে তারা। সেখানে দিল্লির পরই দূষণ তালিকায় নাম ছিল ঢাকার৷ সমীক্ষায় PM 2.5 নামের এক ধরনের সুক্ষ্ম কণার উপস্থিতির হিসেব করা হয়৷ এই কণাগুলি ফুসফুস ও রক্তপ্রবাহে মারাত্মক দূষণ ঘটাতে পারে। বিশেষজ্ঞদের মতে, PM 2.5 দূষণের কারণে ফুসফুসের ক্যানসার, স্ট্রোক ও হার্ট অ্যাটাক হতে পারে। এ ছাড়া শ্বাসযন্ত্রের রোগ হতে পারে, যার মধ্যে অ্যাজমা অন্যতম।বায়ুদূষণে বিশ্বের ১০০টি শহরের মধ্যে শীর্ষে স্থান পেল বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকা ৷ রবিবার ঢাকার প্রতি ঘনমিটার বাতাসে ভাসমান ধূলিকণা ও অন্য দূষণ কণার পরিমাণ ছিল অত্যন্ত বেশি এবং উদ্বেগজনক।