জ্বলে উঠুক সুশিক্ষার আলো,সরস্বতী পূজার শুভেচ্ছা

ব্রেকিং নিউজ »বৃষ্টিস্নাত স্নিগ্ধ সকালে মা সরস্বতী পূজার শুভেচ্ছা এবং অভিনন্দন।🌿📚🌺
তপন সেন প্রতিবেদনঃ মাগো, তোমার কৃপায় কেটে যাক অজ্ঞ্যানের অন্ধকার।🙏 জ্বলে উঠুক সুশিক্ষার আলো

সনাতন ধর্ম মতে বিদ্যা, বাণী ও সুরের দেবী সরস্বতী। দেশের বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, মন্দির সহ বাড়িতে বাড়িতে বিদ্যা দেবীর আরাধনায় নানা আয়জনে সনাতন ধর্মাবলম্বীরা। প্রতিবছর মাঘ মাসের শুক্লপক্ষের পঞ্চমী তিথিতে কল্যাণময়ী বিদ্যাদেবীর বন্দনা করা হয়। তবে, এবারো করোনার কারণে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় বাড়িতেই হচ্ছে পূজার আয়োজন।অজ্ঞতার অন্ধকার দূর করতে কল্যাণময়ী দেবীর চরণে প্রণতি জানাবেন তারা। সনাতন ধর্মালম্বিদের মতে দেবী সরস্বতী সত্য, ন্যায় ও জ্ঞানালোকের প্রতীক। বিদ্যা, বাণী ও সুরের অধিষ্ঠাত্রী। ধর্মীয় বিধান অনুসারে সাদা রাজহাঁসে চড়ে বিদ্যা ও সুরের দেবী সরস্বতী পৃথিবীতে আসেন। পূজা উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পৃথক বাণী দিয়েছেন

‘সরস্বতী মহাভাগে বিদ্যে কমললোচনে/ বিশ্বরূপে বিশালাক্ষী বিদ্যংদেহী নমোহ তুতে’ সনাতন ধর্মাবলম্বীরা এই মন্ত্র উচ্চারণ করে বিদ্যা ও জ্ঞান অর্জনের জন্য দেবী সরস্বতীর অর্চনা করেন।পঞ্জিকা অনুসারে, আজ সকাল ৭টা ৪৫ মিনিটে পঞ্চমী তিথি শুরু হয়ে আগামীকাল সকাল ৭টা ৩৮ মিনিটে শেষ হবে। এর মধ্যে পুরোহিতকে সম্পন্ন করতে হবে দেবীর পূজা। পূজা শেষে দেবীর পায়ে অঞ্জলি দেবেন ভক্তবৃন্দ। করোনাভাইরাস মহামারির কারণে এবার সীমিত পরিসরে আয়োজন করা হচ্ছে সরস্বতী পূজার। এদিন সকালে বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, শিক্ষার্থীদের বাড়ি ও পূজামণ্ডপে সরস্বতী পূজা হবে। পূজা শেষে ভক্তরা অঞ্জলি গ্রহণ করবেন। আজকের বিশেষ দিনটিতে আলোর কণ্ঠ পরিবার ও বসুন্ধরা সংগঠন বিশেষ অনুষ্ঠানর আয়োজন করেছেন এবং বলেন ‘বাংলাদেশ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ। হাজার বছর ধরে এ ভূখণ্ডে জাতি-ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সব ধর্মের মানুষ মিলেমিশে একত্রে বসবাস করে আসছেন।’ এদিন শিশুদের হাতেখড়িরও আয়োজন করা হয় কেটে যাক অজ্ঞ্যানের অন্ধকার।🙏 জ্বলে উঠুক সুশিক্ষার আলো নিয়ে এ আয়োজন সরসরি রাত ৮টায় লাইভে